ঢাকা রবিবার, ১৬ই জুন, ২০১৯ ইং, ২রা আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
basic-bank
শিরোনাম :

রাণীনগরে ধান কাটাকে কেন্দ্র করে মারধর ॥ শিশুসহ আহত ৫

রাণীনগর (নওগাঁ) প্রতিনিধি:নওগাঁর রাণীনগরে বিবাদমান জমির ধান কাটাকে কেন্দ্র করে মারপিটের ঘটনা ঘটেছে। এতে শিশুসহ ৫ জন আহত হয়েছে। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার কালীগ্রাম ইউনিয়নের সিলমাদার গ্রামে। স্থানীয় লোকজন আহতদের উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করায়। আহতদের মধ্যে ২জন প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে বাড়ি আছে আর শিশুসহ ৩ জন হাসপাতালে ভর্তি আছেন। এ ঘটনায় সিলমাদার গ্রামের আবেশ আলী মাষ্টার বাদি হয়ে কয়েক জনের নাম উল্লেখ করে মঙ্গলবার রাতে রাণীনগর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন।
সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার কালিগ্রাম ইউনিয়নের সিলমাদার গ্রামের আবেশ আলী মাষ্টারের সাথে বনপুকুর গ্রামের মৃত মোবারক আলীর ছেলে মোজাহার আলী ও নুর ইসলামের ৫ কাটা ফসলী জমি নিয়ে বিরোধ চলে আসছিলো। এর জেরধরে গত রবিবার মৃত মোবারকের দুই ছেলে মোজাহার আলী ও নুর ইসলাম লোকজন নিয়ে জমির ধান কাটতে লাগে। এ সময় আদেশ আলী মাষ্টারের ছেলে রব্বানী ঘটনাটি জানতে পেরে জমিতে গিয়ে তাদের ধান কাটতে নিষেধ করে। ধান কাটতে নিষেধ করায় মোজাহার আলী ও নুর ইসলামসহ কয়েকজন রব্বানীকে বেধম মারপিট করতে লাগে। তার ভাইকে মারপিট করার কথা জানতে পেরে গোলাম মোস্তফা সেখানে গেলে তাকেও তারা মারপিট করে। এছাড়াও গোলাম মোস্তফার মা সোরেজা বিবি, তার স্ত্রী জেমি সুলতানা একটি জানাজায় যাচ্ছিলো এ সময় তাদেরও মারপিট করেন তারা। গোলাম মোস্তফার স্ত্রীকে মারপিট করার সময় তার গলায় থাকা ৬ আনার স্বর্ণলঙ্কার চেইন গলা থেকে ছিনে নিয়েছে তারা বলেও অভিযোগ উঠেছে। এ সময় গোলাম মোস্তফার ছোট শিশুও আহত হয়। আহত ৫ জনের মধ্যে ২ জন প্রাথমিক চিকিৎসা নিয়ে বাড়িতে আছে ও শিশুসহ ৩ জন হাসপালে ভর্তি আছেন। এ ঘটনায় আহত গোলাম মোস্তফার বাবা আবেশ আলী মাষ্টার বাদি হয়ে কয়েক জনের নাম উল্লেখ করে মঙ্গলবার রাতে রাণীনগর থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। ঘটনাটি ঘটার পর থেকে ওই এলাকায় থমথমে বিরাজ করছে।
আহত গোলাম মোস্তফা জানান, তারা অন্যায় ভাবে আমাদের সবাইকে মারপিট করেছে। আমি ও আমার স্ত্রী, সন্তানকে নিয়ে হাসপাতালে ভর্তি আছি। এ ঘটনায় আমার বাবা বাদি হয়ে রাণীনগর থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। এ ঘটনায় আমি সুষ্ট বিচারের দাবি করছি।
এ ব্যাপারে রাণীনগর থানার ওসি এএসএম সিদ্দিকুর রহমান বলেন, এ ঘটনায় আবেশ আলী মাষ্টার বাদি হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করেছেন। মামলার আসামিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। 

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ