ঢাকা বুধবার, ২৬শে জুন, ২০১৯ ইং, ১২ই আষাঢ়, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
basic-bank
শিরোনাম :
«» গাইবান্ধায় অনুর্দ্ধ-১২ ক্রিকেট কার্ণিভাল অনুষ্ঠিত «» গোবিন্দগঞ্জে খাদ্য গুদামে চাল নিয়ে চালবাজী «» সাদুল্ল্যাপুরে ভিজিডি কর্মসূচির নিম্নমানের১০২বস্তা চাল আটক «» গাইবান্ধা ও কুড়িগ্রাম জেলার মা ও শিশুর পুষ্টি উন্নয়নের লক্ষ্যে প্রকল্প বাস্তবায়নে অবহিতকরণ সভা «» নিয়োগ বানিজ্য ঠেকাতে জনতার সমূখ্যে গাইবান্ধা জেলা পুলিশ সুপার «» বিধবা কে ধর্ষনের চেষ্টায় মামলার আসামিকে আটকের দাবী «» গাইবান্ধায় পিপিআই কমিটির আলোচনা সভা «» রাজবাড়ীতে বাল্যবিবাহের তথ্য দিয়ে ৫ হাজার টাকা পুরষ্কার পেলেন পুলিশ অফিসার  «» নব-নির্বাচিত এম পি গোলাম মোহাম্মদ সিরাজকে অভিনন্দন জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন আলহাজ্ব মোশরফ হোসেন এম পি «» কাহালু পৌরসভার ২০১৯-২০ইং অর্থ বছরের প্রায় সোয়া ১৩ কোটি টাকা বাজেট ঘোষনা

শ্রীমঙ্গলে পর্যটক স্পটগুলোতে ঈদের ৪দিনও পর্যটকদে ভিড়

মৌলভীবাজার অফিস: ঈদের ৪র্থ দিনও শ্রীমঙ্গলে পর্যটনকেন্দ্র গুলোতে পর্যটকদের পদচারণায় মুখরিত হয়ে উঠছে। শ্রীমঙ্গলের বিভিন্ন চা-বাগান, লাউয়াছড়া জাতীয় উদ্যান, বধ্যভূমি ৭১, বিটিআরআই, বাংলাদেশ বন্য প্রাণী সেবা ফাউন্ডেশন, নিলকণ্ঠের ১০ লেয়ার চা, চা-কন্যার ভাস্কর্য, টি রিসোর্ট মিউজিয়াম, বাইক্কাবিল, মণিপুরী পাড়ার হস্ত শিল্পের দোকানসহ বিভিন্ন স্থানে পর্যটকদের উপড়ে পড়া ভিড়। এই ঈদে কোনো হোটেল রিসোর্ট ও কটেজে রুম খালি নেই। সব গুলি বুকিং আগাম হয়ে গেছে। দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে আগত পর্যটক মাহমুদুল কবির রমজানে ঈদ উপলক্ষে পরিবারের সদস্যদের নিয়ে শ্রীমঙ্গলে ঘুরতে এসেছেন। শ্রীমঙ্গলের সবুজ চায়ের বাগান, টিলা, লাউয়াছড়াসহ বিভিন্ন জায়গা ঘুরে দেখেছেন।
তিনি বলেন, এখানকার প্রাকৃতিক দৃশ্য যেকোনো মানুষকে বিমোহিত করে। আর এখানে আসার খরচও অনেক কম। তাহসিন আহমেদ নামের এক পর্যটক বলেন, শ্রীমঙ্গলের পর্যটনকেন্দ্রগুলো সুন্দর হলেও এখানকার রাস্তাঘাটের অবস্থা খুব খারাপ। এখানে দেশের বিভিন্ন স্থান থেকে আসা পর্যটকদের ভিড় হয়, তাই রাস্তাঘাটের ব্যাপারে অবশ্যই গুরুত্বারোপ করা উচিত ছিলো। শ্রীমঙ্গল ট্যুর গাইড এসোসিয়েশনের সদস্য আহাদ মিয়া বলেন, ‘ঈদের দিন থেকে এখন পর্যন্ত দেশ বিদেশের বিভিন্ন স্থান থেকে প্রচুর পর্যটকের আগমন আগমন ঘটে।শ্রীমঙ্গলে দর্শনীয় স্থান ও ভালো মানের হোটেল-রিসোর্ট ও রেস্টুরেন্ট থাকার কারণে এখন পর্যটকেরা শ্রীমঙ্গলকেই বেছে নিচ্ছেন। শ্রীমঙ্গল পর্যটন সেবা সংস্থার আহবায়ক ও টি হ্যাভেন রিসোট্রের পরিচালক আবু সিদ্দিক মুসা বলেন,‘ঈদের ছুটির পরও আমাদের শ্রীমঙ্গলের হোটেল-রিসোর্টগুলোতে ভালো পর্যটক আছে। আশা করছি এ রকমভাবে আরও কয়েক দিন পর্যটকদের ভিড় থকাবে, তিনি আরো বলেন, পর্যটকদের জন্য ট্রেন ও বাসের পর্যাপ্ত টিকিট না থাকার কারণে পর্যটকেরা ভোগান্তিতে পড়ছেন। বিশেষ দিনগুলোতে এখানে পর্যটকের সংখ্যা বাড়ে, তাই সেই সময়ে এখানে বিশেষ যানবাহনের ব্যবস্থা করা প্রয়োজন। যাতে পর্যটকেরা নির্বিঘ্েন বাড়ি ফিরতে পারেন। শ্রীমঙ্গল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুস ছালেক বলেন, শ্রীমঙ্গলের বিভিন্ন দর্শনীয় স্থানে পোষাকে ও সাদা পোষাকে পুলিশের উপস্থিতি রয়েছে। পর্যটকেরা যাতে আনন্দঘন পরিবেশে ঘুরে বেড়াতে পারেন সে লক্ষ্যে তাঁরা কাজ করে যাচ্ছেন।
 

শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ