ঢাকা বুধবার, ২২শে মে, ২০১৯ ইং, ৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
basic-bank
ADD
শিরোনাম :

ঘামাচি সারানোর জন্য মুক্তি পাবেন

কাঠফাটা রোদ আর প্রখর তাপে মানুষের মধ্যে অস্বস্তি তৈরি হয়। এ সময়টাতে শরীরে নানা ধরনের সমস্যা জেঁকে বসে। এর মধ্যে অন্যতম একটি হলো ঘামাচি। আর এই ঘামাচির কারণেই লেগে থাকে চুলকানি সমস্যা।ঘামাচি সারানোর জন্য বাজারে বেশকিছু পাউডার প্রচলিত। অবশ্য এগুলোতে রাসায়নিক মিশ্রিত থাকার কারণে লাভের চেয়ে ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনা বেশি। এজন্য প্রাকৃতিক উপায়ে ঘামাচি থেকে মুক্তি লাভের চেষ্টা করতে হবে। চলুন দেখে নিই কিভাবে এই সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন-

  • একটা শুকনো কাপড়ে কয়েক টুকরো বরফ নিয়ে ১০-১৫ মিনিট ধরে ঘামাচির ওপর লাগান। দিনে ৩-৪ বার এরকম করলে ভালো ফল পাবেন।
  • চার টেবিল চামচ মুলতানি মাটির সঙ্গে পরিমাণমতো গোলাপ জল মিশিয়ে ঘামাচির ওপর লাগান। কিছুক্ষণ রেখে শুকিয়ে নিন। এরপর ধুয়ে ফেলুন। উপকার পাবেন।
  • এক কাপ ঠাণ্ডা পানিতে এক চামচ বেকিং সোডা মিশিয়ে নিন। পরিষ্কার কাপড় ডুবিয়ে ঘামাচির ওপর ১০ মিনিট পর্যন্ত রেখে আলতো হাতে মুছতে থাকুন।
  • ঘামাচির মোক্ষম নিরাময় হলো অ্যালোভেরা। ঘামাচির ওপর শুধু অ্যালোভেরার রস বা হলুদের সঙ্গে অ্যালোভেরার রস মিশিয়ে লাগান। কিছুক্ষণ রেখে ধুয়ে ফেলুন।
  • নিমপাতা ঘামাচির উপশম হিসেবে খুবই কার্যকরী। নিমপাতার রসের সঙ্গে গোলাপ জল মিশিয়ে ঘামাচির ওপর লাগান। ঘামাচি না চুলকে তার ওপর নিম ডাল বোলালেও আরাম পাবেন।
  • দুই টেবিল চামচ চন্দনের গুঁড়োর সঙ্গে পরিমাণমতো গোলাপ জল মিশিয়ে ঘামাচির ওপর লাগান। দ্রুত উপশম পাবেন।
  • তিন টেবিল চামচ ওটমিলের সঙ্গে অর্ধেক টেবিল চামচ হলুদ গুঁড়ো মিশিয়ে ঘামাচির ওপর লাগান। কিছুক্ষণ রেখে ধুয়ে ফেলুন।
শর্টলিংকঃ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। পাঠকের মতামতের জন্য কৃর্তপক্ষ দায়ী নয়। লেখাটির দায় সম্পূর্ন লেখকের।
ঘোষনাঃ